নিন্দার মুখে জেরিন খান

1

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকমঃ শরীরের স্ট্রেচ মার্কসের কারণে সোশ্যল মিডিয়ায় নিন্দার মুখে পড়লেন জেরিন খান। ওজন কমালে বা প্রেগন্যান্সির পরে স্ট্রেচ মার্কস একটি অত্যান্ত স্বাভাবিক বিষয়। তবুও তা নিয়ে হীনমন্যতায় ভোগেন অনেক নারী। তারকাদের ক্ষেত্রে আবার অনেকে এই স্ট্রেচমার্কসের কারণে সমালোচনায় শিকার হন। ঠিক যেমনটা হল অভিনেত্রী জেরিন খানের সঙ্গে। তবে এক্ষেত্রে তার পাশে দাঁড়িয়েছেন আনুষ্কা শর্মা। সম্প্রতি, ইনস্টাগ্রামে নিজের একটি ছবি পোস্ট করেন জারিন। সেখানে জেরিনের শরীরের স্ট্রেচ মার্কস নিয়ে তাকে ট্রোল করতে থাকেন অনেকেই। যদিও এক্ষেত্রে ট্রোলিং জবাবও দিতে ছাড়েননি জারিন।
জারিনের হয়ে মুখ খোলেন তার ভক্তরাও। এক্ষেত্রে জারিনের সাফ জবাব, ওজন কমানোর পর শরীরে স্ট্রেচ মার্কস অত্যান্ত সাধারণ একটা বিষয়। স্ক্রিনশটের স্ট্যাটাস দিয়ে তাকে নিয়ে করা ট্রোলিংয়ের জবাব দেন অভিনেত্রী। পাশাপাশি যারা তাকে সমর্থন করেছেন তাদের প্রশংসা করতেও ভোলেননি তিনি। জারিন বলেন, প্রায় ৫০ কেজিরও বেশি ওজন কমালে স্ট্রেচ মার্কস থাকাটা খুবই স্বাভাবিক। জেরিন আরও জানান, চিরকালই স্বাভাবিক শরীরিক সৌন্দর্যে বিশ্বাস করে এসেছি। তাই স্ট্রেচ মার্কস নিয়ে আমি মাথা ঘামাই না। ফটোশপ বা সার্জারি না করলে স্বাভাবিক মানুষের শরীর এমনই হয়, স্ট্যাটাসে লেখেন জারিন। এক্ষেত্রে, জারিনের পাশে দাঁড়িয়েছেন আনুষ্কা। তিনি লেখেন, জেরিন তুমি যেরকম, সেরকমই তুমি সুন্দর, সাহসী ও আত্মবিশ্বাসী! আনুষ্কার এই স্ট্যাটাসের প্রশংসা করেছেন নেটিজেনরাও। যেভাবে একজন অভিনেত্রী হয়ে আরেক অভিনেত্রীকে ভরসা জোগালেন, তারই আলোচনা এখন সোশ্যাল মিডিয়ায়। প্রসঙ্গত, শেষবার জেরিন খানকে দেখা গিয়েছিল ‘আকসর ২’, ‘হেট স্টোরি ৩’ ও ‘১৯২১’ ছবিতে। তবে বক্স অফিসে এই দুটি ছবিই সেভাবে ছাপ ফেলতে পারেনি। শোনা যাচ্ছে, এবার তেলুগু ছবিতে অভিষেক হতে যাচ্ছে জেরিনের।

1