করোনাকাল নিয়ে টিম খোরশেদ ও টাইম টু গিভের আয়োজনে ঘরে বসে চিত্রাঙ্কন ও রচনা প্রতিযোগিতা

1

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকম:  করোনাকালের বন্দী জীবন ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের শিক্ষা লাভের জন্য নারায়ণগঞ্জ সিটির সেই আলোচিত কাউন্সিলর মাকসুদুল আলমের স্বেচ্ছাসেবী দল টিম খোরশেদ ও সামাজিক সংগঠন টাইম টু গিভের আয়োজনে ঘরে বসে চিত্রাঙ্কন ও রচনা প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়েছে।
শুক্রবার বিকেলে ‘আজকের ছবি আগামী প্রজন্মের সচেতনতার অবলম্বন প্রতিপাদ্যকে সামনে’ এই প্রতিযোগিতা আয়োজনের ঘোষণা দেন কাউন্সিলর মাকসুদুল এই ঘোষণা দেন।
প্রতিযোগিতায় ৪ থেকে ৩০ বছর বয়সীরা ৪টি গ্রুপে ঘরে বসেই অংশ নিতে পারবেন।আগামী ২০ আগস্ট ছবি ও রচনা জমা দেওয়ার শেষ সময়।
মাকসুদুল জানান, করোনাকালের বন্দী জীবনে বৈচিত্র আনা ও করোনাকালকে ভবিষ্যৎ প্রজন্মের শিক্ষা লাভের জন্য চিত্রিত করে রাখার জন্য এ আয়োজন করা হয়েছে। করোনা, লকডাউন, আইসোলেশন, চিকিৎসা, সেরে উঠা, মৃত্যু ও সংশ্লিষ্ট যেকোন বিষয়ে এ চিত্রাঙ্কন ও রচনা প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে হবে।
প্রতিটি গ্রুপের প্রথম দ্বিতীয় ও তৃতীয় জনকে বিজয়ী পুরস্কার ও ১০ জনকে মেরিট সনদ দেওয়া হবে। পরবর্তীদের দেশের করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে অংশগ্রহণকারীদের ছবি কেন্দ্রীয়ভাবে ও দেশের বিভিন্ন স্কুল কলেজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও জেলা শহরের প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করা হবে।
মাকসুদুল আরও জানান, আমাদের সন্তানদের মেধার চর্চা ও এ সময়ের প্রতিটি অংশ ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য শিক্ষা হিসেবে তুলে রাখতেই এমন আয়োজন। এতে বর্তমান প্রজন্ম ডিজিটাল পদ্ধতিতে ঘরে বসেই অংশ নেবে।
প্রসঙ্গত, দেশে করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত ও উপসর্গে মৃত ১০৫টি লাশ দাফন ও সৎকার করেছেন কাউন্সিলর মাকসুদুল। করোনা পরিস্থিতির শুরু থেকে ৬০ হাজার হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরী করে বিতরণ এবং বিপুল পরিমাণ মাস্ক বিতরণ করেন। গরীব দু:স্থদের মাঝে ৩০ শতাংশ ভর্তুকিতে খাদ্য সরবরাহ করেন। ১৪ হাজার পরিবারকে ভর্তুকি মূল্যে ১৪৩ মণ সবজি বিতরণ করেছেন। করোনাকালে যখন চিকিৎসকরা চেম্বারে বসা বন্ধ করে দিয়েছে সেসময় গাইনীসহ বিভিন্ন রোগীদের ১০ জন চিকিৎসক দিয়ে টেলি মেডিসিন সেবা চালু করে। তাঁরা ১০ হাজার রোগীকে চিকিৎসা সেবা দিয়েছেন। করোনায় আক্রান্ত শ্বাসকষ্টের জটিল রোগীদের জন্য ৩৪ জনকে বিনামূল্যে অক্্িরজেন সিলিন্ডার ও ৬২ জনকে প্লাজমা সরবরাহ করেছেন তিনি। পুষ্টির চাহিদা পূরণে প্রতি পিছ ৩ টাকা মূল্যে ৪০ হাজার পিছ বিতরণ করেছেন।

1