আরিয়ানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের প্রমাণ নেই, জানালো হাইকোর্ট

1

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টি ফোর ডটকমঃ  মাদক মামলায় অভিযুক্ত আরিয়ান খান ষড়যন্ত্র করেছিলেন, এমন কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি। মুম্বই হাইকোর্ট জামিনের নির্দেশনায় এমনটাই জানিয়েছে। বিস্তারিত জামিনের এই নির্দেশ নামায় আদালত এও জানিয়েছে যে, আরিয়ান এর কাছ থেকে কিছুই পাওয়া যায়নি। এই ঘটনায় অভিযুক্ত মুনমুন ধামেচা এবং আরবাজ মার্চেন্টও ষড়যন্ত্র করেছিলেন বলে কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি। গত ৩ অক্টোবর মাদক মামলায় নারকোটিকস কন্ট্রোল ব্যুরো শাহরুখ খানের ছেলে আরিয়ান খানকে গ্রেফতার করে। তারই সঙ্গে গ্রেফতার হয়েছিলেন আরবাজ ও মুনমুন।মুম্বই হাইকোর্ট জানিয়েছে, ঘটনায় অভিযুক্ত এই তিনজনের বিরুদ্ধে কোন সদর্থক প্রমাণ নেই। এমনকি আরিয়ানের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটেও অপরাধমূলক কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি।তারা যে মাদক কা-ের ষড়যন্ত্র করেছিলেন এমন কোনও প্রমাণও মেলেনি। এমন কোনও প্রামাণ্য তথ্য মেলেনি, যা বলছে তিন অভিযুক্তের বেআইনি বা অপরাধমূলক কোন উদ্দেশ্য ছিল না। ১৪ পাতার জামিনের নির্দেশনামায় জানিয়েছে আদালত।তিন অভিযুক্তকেই এনসিবি গোয়াগামী প্রমোদতরী থেকে গ্রেফতার করেছিল। টানা ২৬ দিন কারাবাস করে জামিন পেয়েছিলেন আরিয়ান। গত ২৮ অক্টোবরই মুম্বই হাইকোর্টে জামিন পেয়েছিলেন আরিয়ান। ১ লক্ষ টাকার বন্ডে আরিয়ান খানের জামিনদার হয়েছিলেন শাহরুখের বন্ধু-আইপিএল দলের পার্টনার এবং অভিনেত্রী জুহি চাওলা। জামিন পেলেও প্রতি শুক্রবার এনসিবি অফিসে হাজিরা দিতে হচ্ছে আরিয়ান ও অন্যান্য অভিযুক্তদের।

প্রসঙ্গত, নিম্ন আদালতে বার বার আরিয়ানের জামিনের আবেদন খারিজ হওয়ার পরে বম্বে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন আরিয়ান। সেই আবেদনে শাহরুখ পুত্র বলেছিলেন, তার হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটের ভুল ব্যাখ্যা করা হচ্ছে। আরিয়ান এও বলেছিলেন যে, তাকে এই মাদককা-ে জড়ানোর জন্য হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটগুলি ভুল ভাবে ব্যাখ্যা করা হচ্ছে। অবশেষে ২৮ অক্টোবর জামিন পান আরিয়ান।

1