নিজেকে খুব সৌভাগ্যবতী মনে করছি -ববিতা

1

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকম:  বাংলা চলচ্চিত্রের সেরা অভিনেত্রীদের একজন ববিতা। অভিনয় করেছেন ৩৫০ এরও বেশি সিনেমায়। দেশ-বিদেশে বড় বড় চলচ্চিত্র উৎসবে প্রশংসিত হয়েছে ববিতার সিনেমা। সিনেমা দিয়ে নিজেকে যেমন পরিচিতি করেছেন, তেমনি দেশকেও তুলে ধরেছেন। একাধিকবার পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। একসময়ের সাড়া জাগানো এই নায়িকা দুই মাস ধরে ছেলের সঙ্গে কানাডায় রয়েছেন। সেখান থেকেই মুঠোফোনে কথা হলো তার সঙ্গে। কেমন আছেন? ববিতা বলেন,ভালো আছি। কানাডায় সময় কেমন কাটছে? এ অভিনেত্রী বলেন, খুব ভালো সময় কাটছে। ছেলে আমাকে পেয়ে ভীষণ খুশি। আমিও তাই। ছেলের আদর যত্ন করি। রান্না করে খাওয়াই। ঢাকায় তো জেলখানার মতো বন্দি ছিলাম। মন খারাপ হতো। করোনার কারণে বের হতে পারতাম না। কিন্তু এখানে বাসাতে থাকার পাশাপাশি বাইরে বের হই। গাড়ি চালিয়ে ছেলে আমাকে বিভিন্ন জায়গায় ঘুরতে নিয়ে যায়। বিভিন্ন ধরনের খাবার খাই। তবে হালাল খাবার ছাড়া আমি খাই না কিছু। এছাড়া আমার চোখের সমস্যার জন্য ডাক্তারের কাছে গিয়েছিলাম। এখানকার চিকিৎসা ব্যবস্থা তো খুবই ভালো। আর আল্লাহর নাম নেই। পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ আদায় করি। তাহাজ্জুতের নামাজও বাদ দেই না। সবমিলিয়ে দারুণ সময় কাটছে। সামনে আর কোথাও ঘুরতে যাওয়ার পরিকল্পনা আছে? ববিতা বলেন, হ্যাঁ। এখানে একটা নদী আছে। ভীষণ সুন্দর। নদী দেখতে বের হবো। নদী দেখবো, ফিশিংয়ে করবো একদিন। আমার তো আবার ফিশিংয়ের ভীষণ শখ। কানাডা থেকে তো আপনার আমেরিকা যাওয়ার কথা ছিল। কবে যাচ্ছেন? ববিতা বলেন, হ্যাঁ আমার ভাইয়ের কাছে যাবো আমেরিকাতে। আগামী মাসেই যাচ্ছি। তারপর আবার কানাডায় আসবো। এদিকে, বিশ্বনন্দিত চলচ্চিত্র পরিচালক সত্যজিৎ রায়ের জন্মের ১০০ বছর পূর্তিতে ‘অপরাজিত সত্যজিৎ’ শিরোনামের একটি বই প্রকাশিত হয়েছে সম্প্রতি। আটটি দেশের ৫৫ জনের লেখা রয়েছে এই বইটিতে। এর ভূমিকা লিখেছেন অভিনেত্রী ভারতের শর্মিলা ঠাকুর। ববিতার লেখাও বইটিতে স্থান পেয়েছে। সত্যজিৎ রায় পরিচালিত ‘অশনি সংকেত’-এ অভিনয় করেছিলেন নন্দিত এ অভিনেত্রী। সত্যজিৎ রায়কে নিয়ে লিখতে পেরে কেমন লেগেছে? ববিতার উত্তর- এমন একটি গুরুত্বপূর্ণ বইয়ে আমার লেখা জায়গা পেয়েছে। একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে আমার লেখাই প্রকাশ পেলো। এটা অবশ্যই গৌরবের বিষয়। নিজেকে খুব সৌভাগ্যবতী মনে করছি।

1