‘মিস্টার ওসমান’ দুঃসাহস বেশী দেখাবেন না–মেয়র আইভী

1

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টিফোর ডটকম: নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভী সম্প্রতি নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের এমপি সেলিম ওসমানের দেওয়া বক্তব্যের পাল্টা জবাব দিয়েছেন।তিনি বলেছেন, ‘কার সাথে কথা বলছেন, বুঝে বলবেন। আপনার ৩টা মেয়ে আছে, আপনি যে উদাহরণ দিয়েছেন সে উদাহরণ যাতে আপনার মেয়েদের কপালে না পরে। যারে যা খুশি বলবেন না। আমার ১৪ পুরুষের বাড়ি এই নারায়ণগঞ্জ। আপনি অন্য দল করেন, আওয়ামী লীগ নিয়ে আপনার এতো মাথা ব্যাথা কেনো। আপনে কেনো ইউনিয়ন পরিষদ নিয়ে বাড়াবাড়ি করেন। আপনি তো দল ছুট মানুষ। বড় বড় কথা বলবেন না। বহু চেষ্টা করেছেন, এখন আপনাদের বিদায়ের পালা এসেছে।

শনিবার (২ অক্টোবর) বিকেলে বন্দরে নগরীর ২১ নম্বর ওয়ার্ডের শাহী মসজিদ এলাকায় মুক্তিযোদ্ধা সিটি কমপ্লেক্স ভবন ও মুক্তিযোদ্ধা সড়ক উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য আইভী।

এর আগে ৩০ সেপ্টেম্বর হিন্দু নেতৃবৃন্দদের সাথে মত বিনিময় সভায় সেলিম ওসমান বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যদি কাউকে নমিনেশন দেয়, আমি যেই দলই করি না কেন তাকে আমার সমর্থন করতেই হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যদি ভুল করে এটাও আমাদের মেনে নিতে হবে। এই বছর নির্বাচনে সিটি করপোরেশনের মেয়র যে হবে তিনি আমাদের গার্ডিয়ান হবেন। তিনি যদি ভালো হয়ে যান সেই মহিলার মত, যে নাকি কুকুরকে পানি খাওয়াইসিলো। তাহলে মাফ কেন পাওয়া যাবে না? মানুষতো ভুল করলে শুধরাতে পারে। শুধরাতে পারার জন্য যদি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তাকে নমিনেশন দেন তাহলে কি করার থাকবে আমাদের? কিছু করার নেই। নৌকা ছাড়া তো উপায় নাই। সেলিম ওসমানের ওই বক্তব্যকে ইঙ্গিত করে মেয়র আইভী বলেন, হুশ করে কথা বলবেন। আমি কোন অন্যায় কাজ তো করিনি যে মাফ চাইবো। ক্ষমা চাইবেন আপনারা। ক্ষমা চাওয়ার কথা বলবেন আপনার ভাই ব্রাদারকে যারা ত্বকীকে হত্যা করেছে। তাদের ক্ষমা চাইতে বলেন। আমাকে ক্ষমা চাইতে বলেন কোন দুঃসাহসে? দুঃসাহস বেশী দেখাবেন না মিস্টার ওসমান। কখনও কিছু বলি নাই আপনাকে। বলার যখন সময় আসবে তখন পালাতেও পারবেন না। ৪০ বছর ধরে এই নারায়ণগঞ্জকে লুটপাট করে খাচ্ছেন। মানুষ মারছেন, হত্যা করছেন, যা মন চায় তাই বলেন, মাথা দেখা যাবে শুধু, মানুষকে পিষে মারতে চান, নারায়ণগঞ্জ শহরের মানুষ আপনার কথা বলা বন্ধ করে দিবে। কার সাথে লড়তে আসেন কথা বুঝে বলবেন। বাজে কথা বলবেন না। আপনার যাকে যা খুশি বলবেন না।

শাহী মসজিদ এলাকায় মুক্তিযোদ্ধা সিটি ভবনের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন ও মুক্তিযোদ্ধা সড়ক উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এ সময় ২১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হান্নান সরকারের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন- প্যানেল মেয়র আফসানা আফরোজ বিভা হাসান, এনসিসি’র ২২ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর সুলতান আহমেদ ভূঁইয়া, সংরক্ষিত নারী আসনের কাউন্সিলর শিউলী নওশাদ, নাগরিক কমিটির সভাপতি অ্যাড. এবি সিদ্দিকসহ অনেকে।

1