নাসিক মেয়র গণতান্ত্রিক শিষ্টাচারের প্রতি বৃদ্ধাংগুলি প্রদর্শন করছেন–আবু হাসান টিপু

1

ডেইলি নারায়ণগঞ্জ টুয়েন্টি ফোর ডটকমঃ  বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির পলিট ব্যুরো’র সদস্য জননেতা কমরেড আবু হাসান টিপু বলেছেন, নাসিক মেয়র গণতান্ত্রিক শিষ্টাচারের প্রতি বৃদ্ধাংগুলি প্রদর্শন করছেন। কমরেড মিনুর স্মরণ সভার জন্য শহিদ মিনার ব্যবহারের কথা বলে গত তিন সপ্তাহ আগে পত্র দেয়ার পরও স্মরণ সভার দিন কল্পিত সংস্কার কাজের নামে শহিদ মিনারের সকল ফটক বন্ধ করে দিয়ে দলীয় নেতা কর্মীদের শহিদ মিনারে প্রবেশের প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেছেন। এক পর্যায়ে স্মরণ সভাটি করা গেলেও দলীয় অধিকাংশ নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষ শহিদ মিনারে প্রবেশ করতে পারেননি। মেয়র আইভীর এ ধরনের অগণতান্ত্রিক কর্মকান্ড নিশ্চয় শহরবাসী বরদাস্ত করবেন না।

তিনি বলেন, গোলাম ইয়াজদানী খান মিনু তার কিশোর কাল থেকেই পূর্ব পাকিস্তান ছাত্র ইউনিয়নের সাথে যুক্ত থেকে প্রগতিশীল ছাত্র আন্দোলনের নেতৃত্ব দিয়েছেন। ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের প্রশ্নে পূর্ব পাকিস্তান কমিউনিস্ট পার্টি (এম এল) বিভক্ত হলে সুখেন্দু দস্তিদার ও মোহাম্মদ তোয়াহার নেতৃত্বে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে কমরেড মিনু তাঁর নিজের অবস্থান ঘোষণা করেন এবং মুক্তিযুদ্ধের পর সুখেন্দু দস্তিদার ও মোহাম্মদ তোয়াহা সাম্যবাদী দল গঠন করলে তিনি সাম্যবাদী দলের সাথে যুক্ত হন। এবং এরই ধারাবাহিকতায় ১৯৮৬ সালে কমিউনিস্ট লীগ ও ১৯৯২ সালে তিন পার্টির ঐক্যের মধ্যোদিয়ে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি গঠন প্রক্রিয়াতেও গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছেন। ওয়ার্কার্স পার্টির বামপন্থী আন্দোলনের অন্তর্ঘাতমূলক বিলোপবাদী প্রবণতা ও ধারার বিরুদ্ধে দাঁড়িয়ে ২০০৪ এর ১৪ জুন বিপ্লবী রাজনীতি ও বিপ্লবী সত্তা রক্ষায় কেন্দ্র থেকে শুরু করে সারাদেশেই পার্টি পুনর্গঠনের যাত্রা শুরু হয়। বিপ্লবী ভাবমানস স¤পন্ন পার্টির নিবেদিত প্রাণ নেতা-কর্মীদের সমন্বয়ে নারায়ণগঞ্জেও গড়ে ঊঠে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি (পুনর্গঠন কমিটি) যা আজকের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি। এর অগ্র ভাগের নেতৃত্বে ছিলেন কমরেড মিনু।

শোষণ ও বৈষম্যের বিরুদ্ধে আমৃত্যু প্রতিবাদী কন্ঠস্বর বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির সাবেক সভাপতি সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের লড়াকু যোদ্ধা প্রখ্যাত শ্রমিকনেতা কমরেড গোলাম ইয়াজদানী খান মিনুর প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে চাষাঢ়াস্থ কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে অনুষ্ঠিত স্মরণ সভাতে তিনি এসব কথা বলেন।

আজ বিকেলে বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির সভাপতি শ্রমিকনেতা মাহমুদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এসভাতে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি কেন্দ্রীয় কন্ট্রোল কমিশনের চেয়ারম্যান সহিদুল আলম নাননু, সাম্যবাদী দলের পলিট ব্যুরোর অন্যতমনেতা জননেতা কমরেড হানিফুল কবির, এড সুমন মিয়া, নারীনেত্রী রাশিদা বেগম, কমরেড মিনুর জৈষ্ঠ্য কন্যা এড তাবাচ্ছুম খান, বাসদের নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির নেতা প্রদিপ সরকার, মোক্তার হোসেন, রোকসানা বেগম,আইয়ুব আলী, আবুল হোসেন, নাসির হোসেন, সুরুজ আলী মাতুব্বর প্রমূখ।

1